• ঢাকা,বাংলাদেশ
  • বুধবার | ১৬ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২রা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | বর্ষাকাল | সন্ধ্যা ৬:০০
  • আর্কাইভ

লক্ষ্মীপুরে গৃহবধূর উপর নির্যাতন : চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু

৯:০৭ অপরাহ্ণ, জুন ০৪, ২০২১

প্রবাহ ডেস্ক : লক্ষ্মীপুরে যৌতুকের টাকা না পেয়ে শ্বশুর বাড়ির লোকজন কর্তৃক শাহিনুর আক্তার শানু (২৬) নামে এক গৃহবধূকে নির্যাতনের পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (৪ জুন) বিকেলে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান ওই গৃহবধু। নিহতের মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

এর আগে গত মঙ্গলবার দিবাগত রাতে পৌর শহরের উত্তর বাঞ্চানগর এলাকায় শ্বশুর বাড়ীতে তাকে নির্যাতন করা হয়েছে বলে অভিযোগ ওই গৃহবধূর পরিবারের। এদিকে এ ঘটনার পর থেকে তার স্বামী হান্নান ও শ্বশুর বাড়ীর লোকজন পলাতক রয়েছে বলে জানা গেছে।

নিহত শাহিনুরের পরিবার ও পুলিশ সূত্র জানায়, ৫ বছর পূর্বে পৌর শহরের উত্তর বাঞ্চানগর এলাকার দুলাল মিয়ার মেয়ে শাহিনুর আক্তারের সঙ্গে একই এলাকার খোরশেদ আলমের ছেলে সিএনজি অটোরিক্সা চালক হান্নানের বিয়ে হয়। সম্প্রতি শাহিনুরের স্বামী ও শ্বশুর পক্ষের লোকজন হান্নানকে বিদেশ পাঠানোর কথা বলে এক লাখ টাকা যৌতুক দাবী করে আসছিল। কিন্তু পারিবারিক অস্বচ্ছলতার কারণে তা দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন শাহিনুর ও তার পরিবার। এ নিয়ে মঙ্গলবার দিবাগত রাতে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বাক বিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে হান্নান তাকে মারধর করে শ্বাসরোধে হত্যার চেষ্টা চালায় বলে অভিযোগ করেন নিহতের পরিবার। এসময় ঘটনাস্থল থেকে প্রতিবেশীরা তাকে গুরুত্বর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার বিকেলে মারা যান শারমিন।

নিহত শাহিনুরের বাবা দুলাল মিয়া ও তার স্বজনেরা অভিযোগ করে বলেন, সম্প্রতি শাহিনুরের স্বামী হান্নানকে বিদেশ পাঠানোর জন্য শাহিনুরের শ্বশুর বাড়ির লোকজন এক লাখ টাকা যৌতুক দাবী করে আসছিল। তা দিতে না পারায় নির্যাতন চালিয়ে তাকে হত্যা করা হয়।

সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. আনোয়ার হোসেন জানান, নিহত শাহিনুরের গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় শাহীন।

লক্ষ্মীপুর শহর পুলিশ ফাঁড়ির উপ পরিদর্শক (এস আই) আব্দুল মতিন জানান, ঘটনার তদন্ত চলছে। নিহতের ময়না তদন্তের পর সঠিক ঘটনা জানা যাবে এবং পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ



Design & Developed by Md Abdur Rashid, Mobile: 01720541362, Email:arashid882003@gmail.com