• ঢাকা,বাংলাদেশ
  • রবিবার | ১৭ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১লা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | হেমন্তকাল | রাত ১:০৯
  • আর্কাইভ

রামগঞ্জে বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী মনির আহমেদ

১২:০১ পূর্বাহ্ণ, নভে ১৮, ২০১৮

ওমর ফারুক পাটোয়ারী :

অসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ আসনে বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী পরিচ্ছন্ন রাজনীতিবিদ লক্ষ্মীপুর জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি যুদ্ধকালীন সময়ে রামগঞ্জের ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের অন্যতম সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা রামগঞ্জ উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মনির আহমেদ। সর্বজন স্বীকৃত জনপ্রিয় নেতা মনির আহমেদ শহীদ জিয়ার আদর্শ বাস্তবায়নে রাজপথের একজন পরীক্ষিত সৈনিক। বিএনপির চেয়ারপার্সন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার  স্নহে ধন্যহয়ে মনির আহমেদ বর্তমানে রামগঞ্জে শহীদ জিয়াউর রহমানের রেখে যাওয়া অসমাপ্ত স্বপ্ন বাস্তবায়নে এবং উপজেলার মেহনতি মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তনের লক্ষে ধানের শীষের ঝান্ডাহাতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। এরই সাথে রামগঞ্জের নির্যাতিত নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে দলীয় চেয়ারপার্সনের মুক্তির জন্যও সংগ্রাম চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি।

রামগঞ্জ কলেজকে সরকারি করণে অগ্রনী ভূমিকা পালনকারী মনির আহমেদ জানান, বিএনপি দেশ ও জনগণের উন্নয়নে সর্বদা নিবেদিত একটি দল। এ দলকে যেমন ভালবাসি তেমনি রামগঞ্জের জনগণকেও ভালবাসি। এই ভালবাসার টানেই নিজ উদ্যোগে রামগঞ্জ মধুপুর উচ্চ বিদ্যালয়কে সরকারি করনের পাশাপাশি উপজেলার ভাটরা পোষ্ট অফিসকে সাব-পোষ্ট অফিনে উন্নীত করেছেন।

এই ছাড়াও রামগঞ্জ পৌরসভার প্রতিষ্ঠাতা মনির আহমেদ রামগঞ্জের আলিয়া মাদ্রাসাকে কামিলেও উন্নীত করেছেন। উপজেলার নোয়াপাড়া পোষ্ট অফিস স্থাপনসহ আই.ইউ.সি. ডব্লিউ’র মাধ্যমে উপজেলার জগৎপুর, ভাটরা, বিঘা, সাউধেরখীল, সমেষপুর সহ বিভিন্ন এলাকায় সমাজসেবা অফিস স্থাপনের পাশাপাশি একই প্রচেষ্টায় তৎসময়ে রামগঞ্জ বাসীর প্রাণের দাবি চিতোশী-সোনাপুর-দশঘরিয়া-পানিয়াল সড়ক সহ বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ন সড়ক নির্মান করেছেন।

মনির আহমেদ জানান, বিএনপির পতাকাতলে রাজনীতির মাধ্যমেই রামগঞ্জ বাসীর ভাগ্যের পরিবর্তন ঘটাতে চান তিনি। তাই সুযোগ পেলেই অহসায় নিপেড়িত মানুষের পাশে ছুটে যাচ্ছেন এবং সাধ্যমত সহযোগীতা করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তার আমলে নিজ অর্থে পৌরসভার নরিমপুর, উপজেলার হরিশ্চর, শাহ জকিউদ্দিন প্রাথমিক বিদ্যালয়, আকারতমা পোলেরগোড়া, ডোননদী, হোটাটিয়া মার্কেটের পাশে, বিঘা মাদ্রাসার সামনেসহ বিভিন্ন স্থানে চাপাকল স্থাপন করেছেন। রামগঞ্জ বাসীর জন্য তার এ ভালবাসা অনন্ত। তাই বর্তমানে বৈরী সময়েও তাদের জন্যই কাজ করে যাচ্ছেন তিনি।

এ ধারাবাহিকতায় উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় হতদরিদ্রদের মাঝে ৫০ বান টিন, ৭ টি রিক্সা, ৫টি বসতঘর নির্মান করে দিয়েছেন। মস্জিদ, মন্দির সহ ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে অব্যাহত রেখেছেন সহযোগীতার হাত। যার কারনে উপজেলাব্যাপী দলমত নির্বিশেষে মনির আহমেদের অসংখ্য ভক্তের সৃষ্টি হয়েছে।

এদের মধ্যে কয়েকজন জানান, মনির আহমেদের সময়ে তিনি কখনও ঘুষ খেয়েছেন এমন রেকোর্ড নেই। আজ পর্যন্ত কেউই এ নেতার বিরুদ্ধে একটি অপবাদ পর্যন্ত দিতে পারেননি। তাদের মতে আসন্ন নির্বাচনে বিএনপি যাচাই করেই রামগঞ্জে মনির আহমেদের হাতে ধানের শীষের প্রতিক তুলে দিবে। মনির আহমেদ জানান, প্রাণের সংগঠন বিএনপিকে শক্তিশালী করনের লক্ষে রামগঞ্জ বাসীকে নিয়ে সংগ্রাম করে যাচ্ছেন তিনি।

আসন্ন একাদশ সংসদ নির্বাচনে মনির আহমেত রামগঞ্জ আসন থেকে বিএনপি দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী। সঠিক বিবেচনায় দলীয় হাইকমান্ড এবার তাকেই রামগঞ্জ আসনে মনোনয়ন প্রদান করবে বলে মনে করেন তিনি। তাকে মনোনয়ন প্রদান করা হলে দলীয় নেতাকর্মীদের সমষ্টিগত প্রচেষ্টায় বিপুল ভোটের ব্যবধানে লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ আসন উদ্ধার করে প্রিয়দল বিএনপিকে উপহার দিতে পারবেন বলে মনির আহমেদ দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ



Design & Developed by Md Abdur Rashid, Mobile: 01720541362, Email:arashid882003@gmail.com