• ঢাকা,বাংলাদেশ
  • রবিবার | ২৪শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৮ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | হেমন্তকাল | রাত ২:৪৬
  • আর্কাইভ

লক্ষ্মীপুরে ছেলেধরা ‘গুজব ‘ : আতঙ্ক না হয়ে সচেতন হতে বললো পুলিশ সুপার

৪:০০ অপরাহ্ণ, জুলা ০৯, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক :

লক্ষ্মীপুর জেলাসহ সারাদেশে ‘কল্লাকাটা বা ছেলেধরা’ অাতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। ‘ছেলেধরা’ সন্দেহে গত কয়েকদিনে বেশ কয়েকজনকে আটক করে গণপিটুনি দেয় স্থানীয় লোকজন। পরে তাদের পুলিশের হাতে সোপর্দ করা হয়। তবে এখন পর্যন্ত এসব ঘটনার একটিরও কোনো সত্যতা পায়নি আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী।

পুলিশ বলছে- মোবাইল ফোন এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যেমে ছেলেধরার গুজব ছড়ানো হচ্ছে। বাস্তবে যার কোন অস্তিত্ব নেই।

অভিবাবকদের অাতঙ্কিত না হতে এবং সচেতনতার লক্ষ্যে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে মঙ্গলবার (৯জুলাই) সকাল ১১ টায় সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়।

এ সময় লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ সুপার আ স ম মাহতাব উদ্দিন জানান, জেলার দালাল বাজার, উত্তর হামছাদী, গোপিনাথপুর, ভবানীগঞ্জ, লাহারকান্দি, পৌর শিশুপার্ক সংলগ্ন এলাকাসহ ৮টি স্থান থেকে গত কয়েক দিনে ‘ছেলেধরা’ সন্দেহে স্থানীয় লোকজন কয়েকজনকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে দেয়। ঘটনাগুলো তদন্ত করে ছেলেধরা বিষয়ে সত্যতা পাওয়া যায়নি। অাটকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে তাদের অনেককেই ‘মানষিক ভারসাম্যহীন’ বলে মনে হচ্ছে। এছাড়া ব্যক্তিগত অাক্রোশ থেকে ‘ছেলেধরা’ হিসেবে অাখ্যায়িত করে গণপিটুনি দিচ্ছে।

তিনি বলেন, “এখন থেকে কেউ ‘ছেলেধরা’ সন্দেহ কাউকে আটক করলে পুলিশ উভয়কে তাদের হেফাজতে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করবে।”

এ বিষয়ে পুলিশ সবোচ্চ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে বলে জানিয়ে পুলিশ সুপার বলেন, “এ নিয়ে মাঠ পর্যায়ে পুলিশের একটি বিশেষ টিম সার্বক্ষণিক কাজ করে যাচ্ছে।”

পুলিশ সুপার বলেন, “সবাই শুনেছে কিন্তু এরকম কোনো ঘটনার সত্যতা পাওয়া যায়নি। আমরা অভিভাবক ও বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের আশ্বস্ত করছি এবং এ ধরনের গুজব যাতে বিশ্বাস না করে। আমরা অভিবাবকদের সতর্ক হতে বলবো কিন্তু তারা যেন আতঙ্কিত না হয়।সকলের নিরাপত্তায় আইন-শৃংখলা বাহিনী প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে।”

সন্তানদের নিয়মিত বিদ্যালয়ে পাঠানোর অনুরোধ করেন পুলিশ সুপার।

তিনি বলেন, “এক শ্রেণীর লোক সত্যতা যাচাই না করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ‘ছেলেধরা’ গুজব ছড়িয়ে দিচ্ছে। তারা পদ্মাসেতু নির্মাণে ‘মানুষের মাথা’ লাগবে বলে সরকারের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে। এসব অপপ্রচার কারীদের অাইনের আওতায় এনে তাদের বিরুদ্ধেও কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

গুজব রোধ করতে সবার সহযোগিতা কামনা করেন পুলিশ সুপার আ স ম মাহতাব উদ্দিন।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ



Design & Developed by Md Abdur Rashid, Mobile: 01720541362, Email:arashid882003@gmail.com