• ঢাকা,বাংলাদেশ
  • মঙ্গলবার | ২০শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৭ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | গ্রীষ্মকাল | সকাল ১০:৪৮
  • আর্কাইভ

চন্দ্রগঞ্জে রয়েল হসপিটালে প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ,স্বজনদের বিক্ষোভ

৩:১৭ অপরাহ্ণ, মে ২৮, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার চন্দ্রগঞ্জে এক প্রসূতি নরীর মৃত্যুকে কেন্দ্র করে বিক্ষোভ করেছে তার স্বজনেরা। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এবং চিকিৎসকদের অবহেলায় রুবিনা আক্তার নামের ওই নারীর মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি স্বজনদের। এ সময় মৃত নারীর স্বজনেরা লাইসেন্স বিহীন হাসপাতাল বন্ধসহ তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানান।

মঙ্গলবার (২৮মে) দুপুর সাড় ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। পরে পুলিশ এসে পরিস্হিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সকাল ১০ দিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়ার পথে মারা যান তিনি। তবে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছে- ঢাকায় নেওয়ার পথে অক্সিজেন সঙ্কটে রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মফিজ উদ্দিন জানান, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অবহেলায় রোগীর মৃত্যু হলে তদন্তপূর্বক তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মৃত নারীর স্বজনেরা জানান, সোমবার বিকেলে রুবিনা আক্তারের প্রসব বেদনা দেখা দিলে তাকে রয়েল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সিজার করলে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হয়। সেখানে একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেয় রুবিনা আক্তার। সিজারের পর তার শরীরে ৭ ব্যাগ রক্ত দেওয়া হয়। পরে চিকিৎসকরা সঙ্কটাপন্ন রোগীকে নার্সের তত্ত্বাবধানে রেখে প্রকৃত চিকিৎসা না দিলে তার অবস্থা আরও খারাপের দিকে যায়। পরে তাকে অন্য হাসপাতালে নিয়ে যেতে বলে। মঙ্গলবার সকালে ঢাকায় নেওয়ার পথে মারা যান তিনি।

স্বজনদের অভিযোগ, লাইসেন্স বিহীন রয়েল হসপিটালে প্রকৃত চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয় না।

হাসপাতালে আবাসিক চিকিৎসক ও সার্জন ডাঃ সোলায়মান জানান, রোগীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজে রেফার করতে চাইলে তারা কুমিল্লার একটি হাসপাতালে অপারেশন করায়। সেখান থেকে ঢাকা নেওয়ার পথে এ্যাম্বুলেন্সে অক্সিজেন সঙ্কটে রোগীর মৃত্যু হয়। রোগী মৃত্যুর ঘটনায় তাদের কোন অবহেলা ছিলো না বলে দাবি করেন তিনি।

Spread the love

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ



Design & Developed by Md Abdur Rashid, Mobile: 01720541362, Email:arashid882003@gmail.com